বৃহস্পতিবার, ২৫শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম

ভারত–পাকিস্তান ম্যাচের টিকিটের দাম দুই কোটি ছাড়াল

 

দেশ জার্নাল ডেস্কঃ
এ বছরের জুন মাসে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও যুক্তরাষ্ট্রের মাটিতে পর্দা উঠবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের। এই টুর্নামেন্টটিতে প্রথম ধাপে একই গ্রুপে পড়েছে এশিয়ার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দুই দেশ। এখনো বিশ্বকাপ শুরুর মাস তিনেক বাকি থাকতেই পাক-ভারত ম্যাচের টিকিট নিয়ে কাড়াকাড়ি শুরু হয়েগেছে।

দ্য ইউএসএ টুডের বরাত দিয়ে ভারতীয় হিন্দুস্থান টাইমস জানিয়েছে, রি-সেল প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে হাই-ভোল্টেজ এই ম্যাচটির সর্বোচ্চ টিকিটের মূল্য ইতোমধ্যে ১ কোটি ৮৪ লাখ রুপিতে পৌঁছে গেছে। বাংলাদেশের মুদ্রায় যা প্রায় দুই কোটি টাকার সমপরিমাণ। এই রি-সেল প্ল্যাটফর্মগুলো হলো- ‘স্টাবহাব’ বা ‘সিটগিক’।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সংস্থা থেকে (আইসিসি) অফিসিয়াল টিকিটের সর্বনিম্ন মূল্য নির্ধারণ করেছে ৬ ডলার বা বাংলাদেশি মুদ্রায় ৬৫৮ টাকার মতো ধার্য করা হয়েছে। আর ভারত-পাকিস্তান হাই-ভোল্টেজ ম্যাচের অফিসিয়াল টিকিটের মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে চারশ’ ডলার যা বাংলাদেশের মুদ্রায় প্রায় ৪৪ হাজার টাকা। কিন্তু আইসিসির অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে টিকিট এসব কিনে তা পুনরায় অন্যজনের কাছে বিক্রি করা হচ্ছে। বিক্রি হওয়া টিকিট কিনে, আবার সেটি বিক্রি করাতেই টিকিটের দাম এখন আকাশচুম্বি।

রি-সেল সাইটে ভারত-পাকিস্তানের এই ম্যাচের টিকিটের মূল্য ৪০ হাজার ডলার বা প্রায় ৪৪ লাখ টাকার বেশি। প্ল্যাটফর্ম ফিতে যোগ করা হলে এটির মূল্য ধরা হচ্ছে ৫০ হাজার ডলার। যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৫৫ লাখ টাকার মতো। ‘স্টাবহাব’ প্ল্যাটফর্মে মূল্য ধরা হয়েছে ১ লাখ ৭৫ হাজার ডলার বা ১ কোটি ৪ লাখ রুপির সমপরিমাণ। যদি প্ল্যাটফর্ম চার্জ এবং অতিরিক্ত ফি যোগ করা হয় তাহলে সেটি ২ লাখ সাড়ে ২২ হাজার ডলার হয়ে যাচ্ছে। যাকিনা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ২ কোটি ৪৪ লাখ টাকারও বেশি।

ক্রিকেটের যে কোনো ইভেন্টে সবচেয়ে বড় আকর্ষণীয় ম্যাচ হলো ভারত-পাকিস্তান লড়াই। দুই দেশের রাজনৈতিক বৈরিতার কারণে আইসিসির ইভেন্ট বা এশিয়া কাপ ছাড়া তাদের মুখোমুখি লড়াই তেমন দেখা যায় না। যে কারণে তাদের লড়াই দেখার অপেক্ষায় মুখিয়ে থাকে সম্পূর্ণ ক্রিকেট দুনিয়া। যুক্তরাষ্ট্রের মাটিতে আগামী ৯ জুন বিশ্বকাপের অন্যতম আকর্ষণীয় ম্যাচে মুখোমুখি হবে পাকিস্তান ও ভারত।

এই ম্যাচ ঘিরে ইতোমধ্যে ভক্তদের মধ্যে উন্মাদনা চরমে পৌছেছে। আর যার প্রভাব ম্যাচের টিকিটেও পড়েছে। দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীর লড়াই মাঠে বসে দেখতে ভেন্যুর দর্শক ধারণক্ষমতার চেয়েও ২০০ গুণ বেশি আবেদন জমা পড়েছে বলে জানিয়েছে আইসিসি কর্তৃপক্ষ।

এবার পাবলিক ব্যালটের মাধ্যমে অগ্রিম টিকিট বিক্রির ব্যবস্থা করেছিল বিশ্ব ক্রিকেট সংস্থা। আর সেখানে ১৬১টি দেশের ৩০ লাখ মানুষ আবেদন করেন। এবং অবিক্রীত টিকিট কেনার শেষ দিন ছিল গত পরশু। সেদিন যুক্তরাষ্ট্রের তিন ভেন্যুতে হতে চলা ১৬ ম্যাচের মধ্যে ৯টিরই সবগুলো টিকিট বিক্রি হয়ে গেছে। যেখানে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের টিকিটের চাহিদা সবচেয়ে বেশি ছিল।

নিউইয়র্কে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের জন্য তিন ক্যাটাগরির অগ্রিম টিকিট বাজারে ছেড়েছিল আইসিসি। স্ট্যান্ডার্ড ক্যাটাগরির টিকিটের মূল্য ধরা হয়েছে ১৭৫ মার্কিন ডলার (১৯ হাজার ২০০ টাকা), স্ট্যান্ডার্ড প্লাস টিকিটের মূল্য ৩০০ ডলার (৩২ হাজার ৯০০ টাকা) এবং প্রিমিয়াম টিকিটের মূল্য ধরা হয়েছে ৪০০ ডলার (৪৩ হাজার ৯০০ টাকা)।

দেশ জার্নাল / সো আ (অনলাইন)

 

দেশ জার্নাল বাংলাদেশ সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো।

----- সংশ্লিষ্ট সংবাদ -----