বৃহস্পতিবার, ২৫শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যার দায়ে যুবকের যাবজ্জীবন

 

নুরুল আমিন ভূইয়া দুলাল, নিজস্ব প্রতিবেদক

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে জুয়া খেলাকর কেন্দ্র করে প্রতিবাদ করায় গৃহবধূ ছালেহা বেগমকে হত্যার দায়ে তার স্বামী মফিজ উদ্দিন মইজাকে (৩৩) যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন লক্ষ্মীপুর জেলা আদালত। রায়ে একই সঙ্গে তার ১০ হাজার টাকা জরিমানা ও অনাদায়ে আরও ১ বছরের সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ প্রদান করা হয়। আজ সোমবার (১৪ আগস্ট) বেলা সাড়ে ১ টার দিকে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. রহিবুল ইসলাম এ রায় ঘোষণা করেন।
এ বিষয়ে লক্ষীপুর জেলা জজ আদালতের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) জসিম উদ্দিন বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, রায়ের সময় আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন। তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।
মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায় দণ্ডপ্রাপ্ত মফিজ রায়পুর উপজেলার দক্ষিণ চরবংশী ইউনিয়নের চরকাছিয়া গ্রামের মনু মিয়া চৌকিদারের ছেলে। এদিকে ভুক্তভোগী ছালেহা একই এলাকার জিন্নাহ মোল্লার মেয়ে।
আদালত ও এজাহার সূত্র থেকে জানা যায়, মফিজ জুয়া খেলায় আসক্ত ছিল। জুয়া খেলার টাকার জন্য প্রায়ই বাড়িতে এসে স্ত্রী ছালেহাকে ঝগড়া ও মারধর করতো। টাকা পয়সার জন্য নির্যাতন করায় মেয়ের সুখের জন্য জিন্নাহ ৭০ হাজার টাকা মূল্যের একটি গরু কিনে মফিজকে দেয় এবং প্রায় সময় যৌতুকের জন্য নির্যাতন করতে থাকে। কিন্তু এরপরও ছালেহাকে প্রতিনিয়ত শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্যাতন করতেন বলে জানা যায় মফিজ।
এদিকে ২০২০ সালের ৪ মে দুপুরে ছালেহা আত্মহত্যা করেছে বলে তার বাবা-মাকে খবর দেয় শ্বশুরবাড়ির লোকজন। এর আগের রাতে ছালেহাকে মারধর করা হয় বলে স্থানীয়দের কাছে থেকে জানা যায়। এদিকে খবর পেয়ে পুলিশ তার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করে।
এদিকে সালেহা হত্যার রহস্য ময়নাতদন্ত সূত্রে জানা যায় ছালেহাকে মাথায় আঘাত ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনে প্রমাণিত হয়।

জানা যায় পরে একই বছর ১ জুন ছালেহার বাবা জিন্নাহ মোল্লা বাদী হয়ে মফিজসহ ৮ জনের নামে মামলা দায়ের করেন। ২০২১ সালের ৭ মার্চ মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও পিবিআই নোয়াখালী জেলার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মোহাম্মদ সোহেল আদালতে মফিজের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।
সালেহা হত্যার রহস্য তদন্তকালে অন্যদের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগ প্রমাণিত হয়নি। এতে তাদেরকে মামলা থেকে অব্যহতি দেওয়া হয়। দীর্ঘ শুনানি ও সাক্ষীদের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে আদালত আজ রায় প্রদান করেন।

 

দেশ জার্নাল বাংলাদেশ সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো।

----- সংশ্লিষ্ট সংবাদ -----